উত্তর কোরিয়াকে তেল বিক্রি করতে গিয়ে হাতেনাতে ধরা পড়ে গেল চীন। আর তারপরই টুইটারে গর্জে উঠলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। স্পষ্ট ভাষায় জানিয়ে দিলেন, এভাবে আর চলতে পারে না।

সম্প্রতি উপগ্রহ চিত্রে ধরা পড়েছে যে একটি চীনা জাহাজ থেকে তেল বিক্রি হচ্ছে। আর যে জাহাজটি সেই তেল কিনছে সেটি আসলে কিমের উত্তর কোরিয়ার। এরপরই ক্ষোভ প্রকাশ করে আমেরিকা। এই ঘটনায় ক্ষুব্ধ মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প তাঁর টুইটার হ্যান্ডেলে লেখেন, “উত্তর কোরিয়াকে তেল বিক্রি করতে গিয়ে হাতেনাতে ধরা পড়েছে চীন। বিষয়টি অত্যন্ত হতাশাজনক। যদি এভাবেই চলতে থাকে তাহলে ভবিষ্যতে উত্তর কোরিয়া সমস্যার কোনও সমাধান মিলবে না”।

উল্লেখ্য, আমেরিকার চোখে তো বটেই, আন্তর্জাতিক মহলের একটা বৃহৎ অংশের মতেও কিমের কোরিয়াকে বরাবর প্রশ্রয় দেয় বেজিং। আর এজন্য চীনকে বারংবার সাবধান করেছে আমেরিকা। যখন গোটা পৃথিবীর জন্যই উত্তর কোরিয়ার বেলাগাম পরমাণু অস্ত্র পরীক্ষা ত্রাসের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে, তখন চীনের এভাবে রসদ জোগানোকে মোটেই ভাল চোখে দেখছে না মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র।