স্বস্তি লিমিটেড নিয়ে এলো দেশের ১ম পেপারলেস মাইক্রো-ক্রেডিট ব্যবস্থাপনা সফটওয়্যার “স্বস্তি-এমএফআই২৪৭” (Swosti-mfi247)। সম্পূর্ণ অনলাইনভিত্তিক, অটোমেটেড ইআরপি সিস্টেমটি ক্ষুদ্রঋণ কার্যক্রম পরিচালনাকারী বিভিন্ন এনজিও ও সমবায় প্রতিষ্ঠান ব্যবহার করতে পারবেন। এই সিস্টেমের মাধ্যমে ক্ষুদ্রঋণপরিচালনাকারী প্রতিষ্ঠানের মাঠপর্যায়ের কর্মীরা কোনরকম কাগজ-কলমের ব্যবহার ছাড়াই তাঁদের হাতে থাকা মোবাইল বা ট্যাবের মাধ্যমেই ফিল্ডপর্যায়ের ঋণ বা সঞ্চয়ের কিস্তি আদান-প্রদানের তথ্য সংরক্ষণ করতে পারবেন । অফলাইন ও অনলাইনে লেনদেন সংক্রান্ত তথ্যাবলী মোবাইল বা ট্যাবের এপস্-এ একবার এন্ট্রি’র পরেই এই সিস্টেমে বিভিন্ন রকমের ভাউচারসহ ক্যাশবুক, আয়-ব্যয়ের হিসাব সহ দৈনন্দিন ও মাসিক স্থিতিপত্র তাতক্ষণিকভাবে মোবাইলে বা ওয়েবে দেখার সুবিধা রয়েছে – আলাদা করে ভাউচার এন্ট্রি করার কোন প্রয়োজন নাই। ফলশ্রুতিতে এই সিস্টেমে একজন কর্মী ফিল্ডভিজিট সম্পন্ন করার পর পরই ব্যবহারিক অর্থে তাঁর ঐদিনের কাজ সুসম্পন্ন হয়ে যায়। এর ফলে, শাখাপর্যায়ের একজন কর্মী তাঁর বাকিটা সময় নতুন সদস্য অনুসন্ধানসহ পুরাতন বকেয়া আদায়ে আরো বেশী মনোযোগী হতে পারবেন – যা কিনা ঋণ ও সঞ্চয় পরিচালনাকারী প্রতিষ্ঠানের সার্বিক কার্যক্রমকে আরো বেশী গতিশীল, দক্ষ ও কার্যকর করে পরিচালনাব্যয়কে সাশ্রয়ী করতে ভূমিকা রাখবে।

বিজনেস ফাইন্যান্স ফর পুওর বাংলাদেশ (বিএফপি,বি) স্বস্তি’র এই এপস্-ভিত্তিক মাইক্রো-ক্রেডিট-সেভিংস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমটির কার্যক্রম দ্রুত বাস্তবায়ন ও পরিচালনা’র জন্য গত ১৪ইমে, ২০১৮ তারিখে একটি চুক্তি স্বাক্ষর করে। নাথান এ্যাসোসিয়েটস লন্ডন লি: ও স্বস্তি লি: এর মধ্যে এই চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানটি বিডিজবস.কম’এর বোর্ডরুমে অনুষ্ঠিত হয়। উল্লেখ্য যে, স্বস্তি লি:, বিডিজবস্.কম’এর একটি অঙ্গপ্রতিষ্ঠান এবং নাথান এ্যাসোসিয়েটস লন্ডন লি: বাংলাদেশে ডিএফআইডি-এর বিজনেস ফাইন্যান্স ফর পুওর (বিএফপি,বি) কার্যক্রম পরিচালনার জন্য় নিয়োযিত প্রতিষ্ঠান।

চুক্তিস্বাক্ষর অনুষ্ঠানে স্বস্তি’র পক্ষে আহমদ ইসলাম মুকসিত – সিইও, স্বস্তি লি:, ফাহিম মাশরুর – সিইও, বিডিজবস.কম লি:, শোভিত বড়ুয়া – সিটিও, ও মো: শাহাবুদ্দিন – ম্যানেজার, প্রোগ্রাম, এবং নাথান এ্যাসোসিয়েটস’এর পক্ষে ফয়সাল হুসেইন – টিমলিডার, আরাফাত হোসেন – চ্যালেন্জফান্ড ম্যানেজার, মোহাইমিন চৌধুরি – ডেপুটিম্যানেজার, শামিরা মোস্তাফা – চ্যালেন্জফান্ড কোর্ডিনেটর,  রিদোয়ান রোকন –চ্যালেন্জফান্ড কোর্ডিনেটর সহ উভয় প্রতিষ্ঠানের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।