ঢাকা, ১০ সেপ্টেম্বর:
উত্তরা ১৮ নম্বর সেক্টরে রাজউকের অ্যাপার্টমেন্ট প্রকল্পে বরাদ্দ গ্রহীতাদের মধ্যে আজ ফ্ল্যাট নম্বর নির্ধারণ করা হয়। উন্মুক্ত লটারির মাধ্যমে চার কিস্তি পরিশোধকারী ১,৮৩২ জন বরাদ্দ গ্রহীতার মধ্যে ৮৩৭ জনের ফ্ল্যাট নম্বর চূড়ান্ত করা হলো। এ বছরের ডিসেম্বরে সকল ফ্ল্যাট হস্তান্তরের লক্ষ্যে নভেম্বর মাসে আরো একটি লটারি অনুষ্ঠিত হবে বলে এ সময়ে জানানো হয়।
রাজউক মিলনায়তনে লটারি অনুষ্ঠানে গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন রাজউকের চেয়ারম্যান মো. আব্দুর রহমান ও স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড ব্যাংকের নাসের এজাজ বিজয়।
প্রধান অতিথির বক্তৃতায় মন্ত্রী বলেন, সবার জন্য আবাসন নিশ্চিত করতে রাজউক ফ্ল্যাট প্রকল্প গ্রহণ করেছে। আগে রাজউক শুধু প্লট উন্নয়ন করতো। ফ্ল্যাট প্রকল্পের আওতায় বর্তমানে উত্তরায় ৬,৬৩৬টি ফ্ল্যাটের নির্মাণ কাজ শেষ পর্যায়ে রয়েছে। আরো ৪,৮০০ ফ্ল্যাট নির্মাণ করা হবে। এছাড়াও ঝিলমিল প্রকল্পে ১৪ হাজার এবং পূর্বাচলে ৭০ হাজার ফ্ল্যাট নির্মাণ করা হবে। পূর্বাচলে ১০০ একর জমির ওপর ১৪২ তলার একটি আইকনিক টাওয়ার নির্মাণ করা হবে। এ জন্য আন্তর্জাতিক দরপত্র আহ্বান করা হয়েছে।
তিনি বলেন, উত্তরা অ্যাপার্টমেন্ট প্রকল্পে পার্ক, উন্মুক্ত স্থান, খেলার মাঠ, সুইমিংপুল, মসজিদ, স্কুল, ডিপার্টমেন্ট স্টোর, কাঁচা বাজরসহ আধুনিক সকল সুযোগ সুবিধা থাকবে। উত্তরা তৃতীয় পর্বের এলাকায় সাড়ে আট কিলোমিটার দীর্ঘ লেক নির্মাণ করা হয়েছে। এ লেকের পাড় দিয়ে পায়ে হাঁটার পথ নির্মাণ করা হয়েছে। অ্যাপর্টমেন্ট প্রকল্পটিও গড়ে তোলা হয়েছে লেকের পাড়ে।
ফ্ল্যাটের বরাদ্দ গ্রহীতাদের উপস্থিতিতে চার কিস্তি পারিশোধকারী ১,৮৩২ জনের মধ্যে থেকে বিশেষ প্রোগ্রামিং-এর মাধ্যমে প্রথমে ৮৩৭ জনকে বাছাই করা হয়। এরপর একই প্রযুক্তিতে বেছে নেওয়া ৮৩৭ জনের মধ্যে ফ্ল্যাটের নম্বর বিতরণ করা হয়। বরাদ্দ গ্রহীতাদের উপস্থিতিতেই ফলাফল তালিকায় রাজউকের চেয়ারম্যানসহ বোর্ডের সদস্যগণ স্বাক্ষর করেন। অত্যন্ত স্বচ্ছ প্রক্রিয়ায় এ লটারি সম্পাদন করায় উপস্থিত সবাই ধন্যবাদ জানান।