এন.আই.মিলন, দিনাজপুর প্রতিনিধি- দিনাজপুরের বীরগঞ্জ ছাত্রলীগের আয়োজনে ফেসবুকে স্টাটাস দেয়াকে কেন্দ্র করে রংপুরের হরকলি ঠাকুরপাড়ায় হিন্দু সম্প্রদায়ের বাড়ি-ঘরে হামলা-অগ্নিসংযোগ ও লুটপাটের প্রতিবাদ এবং ঘটনার সাথে জড়িতদের দ্রুত বিচারের দাবীতে মানববন্ধন ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

১৪ নভেম্বর মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১১টায় বীরগঞ্জ পৌর শহরের পুরাতন শহীদ মিনার মোড়ে উক্ত মানববন্ধন ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। ঘন্টাব্যাপী মানববন্ধন অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব জাকারিয়া জাকা, উপজেলার চেয়ারম্যান মোঃ আমিনুল ইসলাম, উপজেলা আ’লীগের সহ-সভাপতি ও বীরগঞ্জ ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ মোঃ খয়রুল ইসলাম চৌধুরী, যুগ্ন সাধারন সম্পাদক মোঃ রাজিউর রহমান রাজু, বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কেন্দ্রিয় সহ সভাপতি মোঃ আবু হুসাইন বিপু, কাহারোল উপজেলা কৃষকলীগের সভাপতি গোপেশ চন্দ্র রায়, বীরগঞ্জ পুজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি অরুন চন্দ্র দাস, বীরগঞ্জ উপজেলা যুবলীগের সভাপতি নুরিয়াস সাঈদ সরকার, সাধারণ সম্পাদক মোঃ মোসাদ্দেক হোসেন, স্বেচ্ছাসেবক লীগের আহবায়ক দীপংকর রাহা বাপ্পী, উপজেলা কমিউনিষ্ট পার্টির সাবেক সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক প্রশান্ত কুমার সেন, মোঃ উপজেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক রোকনুজ্জামান বিপ্লব, যুগ্ন আহবায়ক মোঃ সাজেদুর রহমান অন্তু, ছাত্রলীগ নেতা মোঃ মোনায়েম হোসেন মিয়া প্রমুখ। এ সময় উপজেলা ও পৌর আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, কৃষকলীগ এবং ছাত্রলীগের সকল ইউনিটের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

বক্তাগণ বলেন, একটি মহল দেশে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা সৃষ্টির অপচেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে। সেই চক্রামত্মকারীরা বাংলাদেশের উন্নয়নের গতিপথ পরিবর্তন করতে সাম্প্রদায়িক সম্প্রতি বিনষ্টের চেষ্টা চালাচ্ছে। দেশের সকল ধর্ম এবং বর্ণের মানুষকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে তাদের সেই চক্রামত্ম প্রতিহত করতে হবে। ন্যাক্কারজনক এই হামলায় জড়িতসহ সকল ক্ষেত্রে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টকারীদের চিহ্নিত করে অবিলম্বে গ্রেফতার এবং বিচারের মাধ্যমে কঠোর শাস্তি দাবী করেন।