এন.আই.মিলন, বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি- দিনাজপুরের বীরগঞ্জে ভালবাসার টানে প্রেমিকার সাথে দেখা করতে গিয়ে প্রেমিক আটক, অতঃপর বিয়ে।
উপজেলার পলাশবাড়ী ইউনিয়নের ব্রাম্মনভিটা কলনীপাড়া গ্রামের নমু শেখের কন্যা দিনাজপুর মহিলা কলেজের ইতিহাস বিভাগের ছাত্রী সুমি আক্তারের সাথে বীরগঞ্জ ডিগ্রী কলেজের ব্যবস্থাপনা বিভাগের ছাত্র, ঠাকুরগাঁও জেলার পীরগঞ্জ উপজেলার জাবরহাট গলন্দাগাঁও গ্রামের মৃত হাসান আলীর পুত্র ইমান আলীর সম্পর্ক প্রায় দেড় বছর ধরে চলছিল। হঠাৎকরে তাদের সম্পর্কের অবনতি হলে গত ৪ সেপ্টেম্বর ইমান আলী বীরগঞ্জ ডিগ্রী কলেজে ক্লাস করতে এলে সুমি আক্তার দেখা করতে এসে ৭/৮ জন যুবকের সহযোগিতায় দুপুরে ইমান আলীকে আটক করে বাড়ীতে নিয়ে আটকে রেখে বাড়ীতে সংবাদ দেয়। ৫ সেপ্টেম্বর বিকালে ইমান আলীর বড়ভাই আকরাম হোসেন ঘটনাস্থলে পৌচালে স্থানীয় চাপের মুখে ছোট ভাই ইমান আলীর বিয়ে দিয়ে ৬ সেপ্টেম্বর বাড়ীতে ফেরৎ যায়।
এ ব্যাপারে স্থানীয় ইউপি সদস্য আজিজার রহমান বিয়ের ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে।