ঢাকা: শুক্রবার, ১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮

তথ্যমন্ত্রী ও জাসদ সভাপতি হাসানুল হক ইনু বলেছেন, ‘খালেদা জিয়ার ভবিষ্যৎ আদালত নির্ধারণ করবে এবং বিএনপি’র নির্বাচনে অংশ নিতে কোনো বাধা নেই। কিন্তু বিএনপি সাজাপ্রাপ্ত  খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিকে পূর্বশর্ত করে নির্বাচন থেকে সরে আসার   ফন্দিফিকির ও পাঁয়তারা করছে।’

শুক্রবার সকাল সাড়ে আটটায় ঢাকায় মিরপুরের মাজার রোডে মুক্তিযোদ্ধা কবরস্থানে মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক ও জাসদ নেতা কাজী আরেফ আহমেদের ১৯ তম শাহাদতবার্ষিকীতে তার কবরে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন উত্তর সভায় মন্ত্রী একথা বলেন।

হাসানুল হক ইনু বলেন, ‘যুদ্ধাপরাধীদের নিয়েই বিএনপির যাত্রা শুরু এবং তারপর থেকে খালেদা বা বিএনপি কখনোই অপরাধীদের সংগ ছাড়েনি। সে ধারাবাহিকতায় আদালতে প্রমাণিত অপরাধী খালেদার মুক্তির জন্যও বিএনপি’র দাবিতে আশ্চর্যের কিছু নেই।’

‘খালেদার ভবিষ্যৎ আদালত দেখবে। তার জন্য মায়াকান্না থামিয়ে নির্বাচনে অংশ নেবার প্রস্তুতি নিন’, বিএনপি’কে বলেন তিনি।

জাসদ সভাপতি ইনু এসময় কাজী আরেফের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে বলেন, জাসদের মূলমন্ত্র জঙ্গি-দুর্নীতি-দারিদ্র‍্য নির্মূলে কাজী আরেফের অসমাপ্ত কাজ করবে তার দল।

জাসদ মহানগর পশ্চিমের সভাপতি মাইনুর রহমানের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে দলের সাধারণ সম্পাদক শিরিন আখতার এমপি, সহসভাপতি নূরুল আখতার, জাসদ উত্তর সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা শফিউদ্দিন মোল্লা, কাজী আরেফ ফাউন্ডেশনের সভাপতি কাজী মাসুদ আহমেদ, শ্রমিক জোট সাধারণ সম্পাদক নাঈমুল আহসান জুয়েল, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ সভাপতি শামছুল ইসলাম সুমন প্রমূখ স্মরণসভায় বক্তব্য রাখেন।